Breaking News

গায়ে লাল বেনারসি শাড়ি, গয়নাগাটি ও হাতে মেহেদির রঙ সবই আছে নববধূ সুইটি খাতুন পূর্ণিমার। কিন্তু তার শরীরটাতে শুধু প্রাণটাই নেই। নতুন জীবন শুরুর আগেই সুইটির প্রাণ কেড়ে নিয়েছে সর্বনাশা পদ্মা। আজ সোমবার সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে রাজশাহী নগরীর সাহাপুর এলাকায় তার লাশটি ভেসে ওঠে। এ নিয়ে নৌকাডুবির ঘটনায় মোট নয়জনের মরদেহ উদ্ধার করা হলো। নিখোঁজ সবাইকে খুঁজে পাওয়ায় উদ্ধার কাজ সমাপ্ত ঘোষণা করা হয়েছে।৫ মার্চ পবা উপজেলার চরখিদিরপুর এলাকার ইনসার আলীর ছেলে আসাদুজ্জামান রুমনের সঙ্গে একই উপজেলার ডাঙেরহাট এলাকার শাহীন আলীর মেয়ে সুইটি খাতুন পূর্ণিমার বিয়ে হয়। রাজশাহী মহানগরীর শ্রীরামপুরে বৌভাত অনুষ্ঠান থেকে ফেরার পথে শুক্রবার (৬ মার্চ) সন্ধ্যা ৭টার দিকে পদ্মা নদীতে যাত্রীবাহী নৌকাডুবির ঘটনা ঘটে। এ ঘটনার পর তদন্তে পাঁচ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করে জেলা প্রশাসন। তদন্ত কমিটির প্রধান রাজশাহীর অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আবু আসলাম সে সময় জানান, ডুবে যাওয়া নৌকা দুটি ছিল ডিঙি নৌকা। ধারণক্ষমতার অতিরিক্ত যাত্রী বোঝাই ছিল। শুক্রবার সন্ধ্যায় নৌকোডুবির ঘটনার পর শনিবার বিকেল পর্যন্ত নিখোঁজ নয়জনের মধ্যে ছয়জনের এবং রবিবার বিকেল পর্যন্ত আরও দুইজনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

User Rating: Be the first one !

About admin

Check Also

বিয়েতে রাজি না হওয়ায় প্রেমিকের গো’পনা’ঙ্গে কে’টে দিল

কুমিল্লার বরুড়া উপজেলায় বিয়েতে রাজি না হওয়ায় প্রেমিকার পরিবার এক যুবকের পু’রুষা’ঙ্গে ছু’রি দিয়ে আ’ঘাত …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *